নিউজভিডিও

অ’শ্লী’নতার সীমা ছাড়ানো ঋতুপর্ণা সেনগুপ্তের সেরা 9 টি ছবি, যা কখনো কারোর সামনে দেখতে পারবেন না! রইলো ভিডিও

নিজস্ব প্রতিবেদন :- বাংলার অভিনয়জগতে উজ্জ্বল নক্ষত্রের নাম হল ঋতুপর্ণা সেনগুপ্ত । ১৯৮৯ সাল থেকে বাংলা চলচ্চিত্র শিল্পের সঙ্গে জড়িত ঋতুপর্ণা অভিনয় করেছেন একাধিক বাংলাদেশী ও হিন্দি চলচ্চিত্রেও।বাণিজ্যিক ও শৈল্পিক উভয় ধারার সিনেমাতে তার সুদক্ষ অভিনয় তাকে এনে দিয়েছে একাধিক পুরস্কার। অভিনয়ের পাশাপাশি বিভিন্ন সমাজসেবামূলক কাজ ও লেখালিখির সঙ্গেও জড়িত ঋতুপর্ণা।

৭ ই নভেম্বর ১৯৮১ সালে জন্মগ্রহণ করেন তিনি এরপর খুব অল্পবয়সেই চিত্রাংশু নামে একটি শিল্পবিদ্যালয় থেকে অঙ্কন, নৃত্য ও হাতের কাজে দক্ষতা অর্জন করেন। কিন্তু ছোটবেলা থেকে তার অভিনয়ের প্রতি একটা আলাদা টান ছিল এবং সেই টান এর কারণে তিনি তার বাকি জীবন অভিনয় নিয়ে কাটাবেন বলে স্থির করেন। এর পর কুশল চক্রবর্তী বিপরীতে বাংলা ধারাবাহিক শ্বেত কপোত ” দিয়ে ঋতুপর্ণা সেনগুপ্তর অভিনয় জীবনের শুরু ।

বাংলা সিনেমা পাশাপাশি ঋতুপর্ণা সেনগুপ্ত হিন্দি এবং বাংলাদেশি সিনেমাতে অসামান্য দক্ষতা প্রভাব রেখেছে। তার অভিনীত প্রথম বাংলাদেশী সিনেমা হল স্বামী কেন আসামী ।এর পাশাপাশি প্রভাত রায় এর তৈরি শ্বেত পাথরের থালা জাতীয় পুরস্কার পেয়েছিল যেখানে অভিনয় করেছিলেন ঋতুপর্ণা সেনগুপ্ত ।

তবে এসবের পাশাপাশি এমন বেশ কিছু সিনেমা রয়েছে যার অন্ত-রঙ্গ দৃশ্য নিয়ে ঋতুপর্ণা সেনগুপ্তকে রীতিমতো সমালোচনার মুখো-মুখি হতে হয়েছিল। বয়স যত বেড়ে চলেছে ততই যেন বেড়ে চলেছে তার রূপ এবং যৌ-ব-ন ।এই বয়সে তিন টেক্কা দিতে পারবেন বহু অভিনেত্রীকে। তার সাথে সাথে বেড়ে চলেছে তার সাহসী পদক্ষেপ। ক্যারিয়ার জীবনে একদম শেষ মুহূর্তে এসে এই সাহসী পদক্ষেপ যেন তুঙ্গে।

আহরণ, তিন কন্যা, তৃষ্ণা, বেদনি সহ আরো অনেক ছবি আছে যেখানে ঋতুপর্ণা সেনগুপ্তকে দেখা যায় বোল্ড মেজাজে। বলা যেতেই পারে অন্তরঙ্গ ছবির দৃশ্যে অভিনয় করেছেন তিনি । এসব ছবিতে অভিনয় করার জন্য তাকে রীতিমত তার অনুগামীদের সমালোচনার মুখে পড়তে হয়েছে। তবে সেই সবের তোয়াক্কা তিনি কোনদিনই করেননি আজও করেননি তাই সেসব কে পিছনে ফেলে নিজের মতন করে এগিয়ে নিয়ে চলেছে তার জীবন ।

https://www.youtube.com/watch?v=iotc5wE4_ZI&feature=youtu.be

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button