‘বলবিন্দর সিংহের ওপর থেকে পুলিশকে বলুন মামলা তুলে নিতে, মমতাকে অনুরোধ রাজ্যপালের!

‘বলবিন্দর সিংহের ওপর থেকে পুলিশকে বলুন মামলা তুলে নিতে, মমতাকে অনুরোধ রাজ্যপালের!

নিজস্ব সংবাদদাতা: পশ্চিমবঙ্গের রাজ্যপাল জগদীপ ধানকর আবারও শিখ দেহরক্ষী বলবিন্দার সিং প্রসঙ্গে মমতা সরকারকে আক্র-মণ করেছেন। তিনি বলেছেন যে মানবাধিকার রক্ষার জন্য আরও ভাল বার্তা দেওয়ার একমাত্র উপায় হল বিলবিন্দর সিংএর বি-রু-দ্ধে সমস্ত মা-ম-লা দ্রুত প্রত্যা-হার করা।

শিখদের সর্বোচ্চ সংগঠন অকাল তাখত কর্তৃপক্ষ দ্বারা জারি করা বিবৃতি উল্লেখ করে রাজ্যপাল বলেছিলেন যে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উচিত বলবিন্দর সিংয়ের বি-রু-দ্ধে পুলিশ যে ব্যবস্থা নিয়েছে, তাতে সংশোধনমূলক অবস্থান গ্রহণ করা উচিত।

বলবিন্দর সিং বাংলায় মানবাধিকার লঙ্ঘনের কারণে গ্রেফ-তার হন। এক অহিংস মিছিলে তাকে ব-ন্দু-ক সহ পাওয়া যায়। ভারত সরকারের অ-স্ত্র আইনের বিভিন্ন ধারায় মা-ম-লা দা-য়ে-র করা হয়েছে তার নামে।
উল্লেখ্য, শিখ জওয়ানের সাথে দুর্ব্যবহারের বি-রু-দ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়ার দাবিতে অকাল তাখত মমতা সরকারকে চূড়ান্ত সত-র্কতা জারি করেছে। রাজ্যপাল বলেছেন যে, রাজ্য সরকারের তাত্ক্ষণিকভাবে অকাল তাখতের আবেদন মেনে নেওয়া উচিত।

গত বৃহস্পতিবার হাওড়া-কলকাতায় ভারতীয় জনতা পার্টির (বিজেপি) একটি মিছিল চলাকালীন বলবিন্দার সিংকে পশ্চিমবঙ্গ পুলিশ গ্রে-ফ-তার করে। অবৈধভাবে আ-গ্নে-য়া-স্ত্র বহনের অভি-যোগে গ্রে-প্তা-র করা হয়েছিল। সেখানেই দেখা যায় তার পাগড়ি খুলে তাকে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে।

এই ঘটনায় শিখ ধর্মএর প্রতি অসম্মানের বি-রু-দ্ধে পরে দেশব্যাপী ক্ষো-ভের সৃষ্টি হয়েছিল। দা-ঙ্গা, হ-ত্যার চেষ্টা এবং আদেশ অমান্য করার অভি-যোগসহ ভারতীয় দ-ণ্ডবিধি (আইপিসি), দু-র্যো-গ ব্যবস্থাপনা আইন ও অ-স্ত্র আইনের বেশ কয়েকটি প্রাসঙ্গিক ধারায় দা-য়ে-র করা মা-ম-লা-য় তাকে গ্রে-প্তা-র করা হয়েছে।

,