নিউজ

‘রাজ্যে কমিয়ে দিলাম করোনা পরীক্ষার খরচ, প্যান্ডেলে যাওয়ার সময় অবশ্যই সকলে মাস্ক পড়ে থাকুন’- আবেদন মুখ্যমন্ত্রীর

নিজস্ব প্রতিবেদন :- দেশে করোনা প্রায় ৭১ লক্ষ্য ছাড়িয়েছে মৃ-তের সংখ্যা এক লাখ ছাড়িয়েছে । এমতাবস্থায় সামনে পুজো কে কেন্দ্র করে পরিস্থিতি কোন জায়গায় পৌঁছাতে পারে তা নিয়ে উদ্বিগ্ন গোটা দেশ । কিন্তু অন্যদিকে বাঙালিরা সারা বছর অপেক্ষা করে থাকেন শুধু মাত্র চার দিনের জন্য । কাজেই বাকি সমস্ত কিছুকে ভুলে পুজোতে মাততে চলেছে এই বাংলা।

রাজ্য যখন প্রতিদিনের রেকর্ড ভেঙে দিচ্ছে করোনা আ-ক্রা-ন্তে-র সংখ্যা ,সেই মুহূর্তে দাঁড়িয়ে এই বাংলায় দূর্গাপূজোর পরের পরিস্থিতি ঠিক কি হতে চলেছে তা নিয়ে উদ্বিগ্ন রাজ্যবাসী । এবারের পুজো অল্প করে হলেও হবে, থেমে থাকবে না। তাই ক্লাব কমিটিগুলোকে ৫০ হাজার টাকা করে অনুদান দেওয়ার কথা কিছুদিন আগে ঘোষণা করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় । এর পাশাপাশি নির্দেশ দিয়েছেন তিনি প্যান্ডেলের ছাদ খোলা রাখতে ,জমায়েত যাতে না হয় সেদিকে নজর রাখতে,, মাস্ক-স্যানিটাইজার গ্লাভস ইত্যাদির ব্যবহার যেন হয় সেদিকে নজর রাখতে বলেছেন মাননীয় মুখ্যমন্ত্রী । তবে এরপর আরও এক বড় ঘোষণা করল পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য সরকার।

করোনা পরীক্ষা করার জন্য এর আগে মানুষকে ২২৫০ টাকা দিতে হতো, কিন্তু পুজোর কথা মাথায় রেখে এবং সাধারন থেকে নিম্ন সাধারণ মানুষের সুবিধার কথা ভেবেই এই টেস্ট করার যে টাকা তা কমিয়ে আনা হলো । করোনা পরীক্ষা করতে এবার আর ২২৫০ টাকা নয় বরং ১৫০০ টাকা লাগবে .)। এমনটাই নির্দেশ দিয়েছে নবান্ন।

এর পাশাপাশি মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় রাজ্যবাসী উদ্দেশ্যে একটি বার্তা দিয়েছেন । তিনি বলেছেন বাংলায় পুজো হবে কিন্তু সং-ক্র-ম-ণ ঠেকাতে হবে । তার সাথে সাথে রাজ্যবাসী কে বলেছেন মাস্ক অবশ্যই ব্যবহার করুন এতে আপনার সুবিধা আপনার ভালো । এর পাশাপাশি পুজোর চারটে দিনে ২৪ ঘন্টা নবান্ন খোলা থাকবে কন্ট্রোল যাতে সাধারণ মানুষ কোন অসুবিধা মুখে না পড়ে ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button