এই 11 টি গোপন কার্যকরী লক্ষণে 100% বুজতে পারবেন আপনার কন্যা না পুত্র সন্তান হবে!

এই 11 টি গোপন কার্যকরী লক্ষণে 100% বুজতে পারবেন আপনার কন্যা না পুত্র সন্তান হবে!

নিজস্ব প্রতিবেদন:- মা হওয়া একটি গর্বের ব্যাপার । মাতৃত্ব বাকি সকল ঘটনাকে ছাপিয়ে যাবার ক্ষমতা রাখে। আমাদের মধ্যে অনেকেই হয়তো চায় যে তার বাড়িতে বা তার কোলে আসুক ফুটফুটে একটি কন্যাসন্তান। আবার কেউ কেউ চাই তার কোলে ফুটফুটে একটি পুত্রসন্তান। যদিও এই পুত্র সন্তান বা কন্যা সন্তান জন্ম নেওয়ার জন্য আমাদের বাহ্যিক কোন হাত থাকে না অর্থাৎ আমাদের ইচ্ছামতো পুত্র সন্তান ও কন্যা সন্তানের জন্ম হয় না। তবুও গর্ভের ভ্রূণ কোন লিঙ্গের সেটি বর্তমানে বোঝার জন্য অনেক পরীক্ষা বাজারে আছে ।

অনেক পদ্ধতি বাজারে থাকলেও সেগুলো একান্তই গোপ-নীয় এবং সুরক্ষিতভাবে করা হয়। কারণ আমাদের মধ্যে অনেকেই কন্যা ভ্রুণ হ-ত্যা করার মানসিকতা থেকে থাকে ।পৃথিবীতে জন্ম নেওয়ার অধিকার পুত্র এবং কন্যার ওপর সমানভাবে আছে। কিন্তু বেশ কিছু ঘটনা আমাদের সামনে এসেছে যার থেকে প্রমাণিত হয় যে কন্যা ভ্রুণ নষ্ট করে দেওয়ার জন্য ম-রি-য়া হয়ে ওঠেন কিছু কিছু মায়েরা। কিন্তু এমন বেশ কিছু লক্ষণ থাকে যা থেকে আপনি সহজে বুঝতে পারবেন আপনার গর্ভে থাকা ভ্রু-ণ কোন লি-ঙ্গে-র ।গর্ভের ভ্রূণ যদি কন্যা হয় তাহলে বেশ কিছু লক্ষণ পরিস্ফুট হয়ে ওঠে যেমন।

গর্ভ অবস্থায় থাকা অবস্থায় সকালে দিকে অলসতা গ্রাস করে ।এই অলসতার পরিমাণ যদি কম হয় তাহলে আপনার গর্ভে পুত্র সন্তান এবং অলসতা বেশি হলে আপনার গর্ভে কন্যা সন্তান বিরাজ করছে ।

আপনি যদি গর্ভাবস্থায় ঘুমাতে ঘুমাতে ডান দিকে কাত হয়ে বেশি পরিমাণে ঘুমান তাহলে আপনার গর্ভে কন্যা সন্তান রয়েছে।

গর্ভ অবস্থায় থাকা অবস্থায় আপনার চুলের উজ্জ্বলতা যদি বেশি পরিমাণ হ্রাস পায় তাহলে আপনার গর্ভে কন্যা সন্তান থাকতে পারে ।

গর্ভবস্থায় আপনার যদি চকলেট আইসক্রিম বা মিষ্টিজাতীয় কোন খাবার খেতে বেশি ভালো লাগে তাহলে আপনি ধরে রাখুন আপনার গর্ভে ফুটফুটে একটি কন্যাসন্তান রয়েছে ।

গর্ভবস্থায় মেয়েদের ইউরিনের পরিবর্তন দেখা যায়। যদি মাঝে মধ্যে প্রস্রাবের রঙ পালটে সাদা ঘোলাটে হয়ে যায় তাহলে আপনি এক কন্যা সন্তানের জন্ম দিতে চলেছেন।

প্রসবের দিন যত কাছে আসে গর্ভবতী মহিলার স্তনের আকার তত বেড়ে ওঠে। সেই সময় বাম দিকের স্তন যদি ডান দিকের স্তনের তুলনায় বেশি বড় হয় তাহলে যে সন্তান আসছে সে কন্যা সন্তান।

সাইকোলজি অনুযায়ী আপনার গর্ভবস্থায় যদি আপনার মন খুব ভালো থাকে, আপনি খুব শৃঙ্ক্ষলা পরায়ন থাকেন তাহলে আপনি কন্যা সন্তানের মা হবেন। আর আপনি যদি ক্লামজি মুডে থাকেন তাহলে আপনি পুত্র সন্তানের মা হবেন।

উপবীত লক্ষণগুলি যদি আপনার মধ্যে ফুটে ওঠে তাহলে আপনি নিশ্চিন্ত থাকুন যে আপনি আগামী দিনে জন্ম দিতে চলেছেন ফুটফুটে একটি কন্যা যা পরবর্তীকালে দেশের ভবিষ্যত হয়ে উঠবে ।